বাংলাদেশে ct scan করতে কত টাকা লাগে | বিস্তারিত তথ্য ও FAQ

বাংলাদেশে CT Scan করতে কত টাকা লাগে বাংলাদেশে CT Scan করতে কত টাকা লাগে | বিস্তারিত তথ্য ও FAQ বাংলাদেশের বিভিন্ন হাসপাতালে CT Scan করার খরচ কত, তা জানতে চান?

এই নিবন্ধে আমরা আপনাকে বাংলাদেশে CT Scan করতে কত টাকা লাগে, সেই সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য এবং প্রায়শই জিজ্ঞাসিত প্রশ্নের উত্তর দিয়েছি।

বাংলাদেশে ct scan করতে কত টাকা লাগে

CT Scan বা Computed Tomography Scan হলো এক ধরনের মেডিক্যাল ইমেজিং টেস্ট, যা এক্স-রে রশ্মির সাহায্যে শরীরের ভিতরের অঙ্গ-প্রত্যঙ্গের ত্রিমাত্রিক ছবি তৈরি করে। CT Scan বিভিন্ন রোগ, যেমন ক্যান্সার, হৃদরোগ, স্ট্রোক, এবং আঘাত নির্ণয় করতে ব্যবহৃত হয়।

বাংলাদেশে CT Scan করার খরচ বিভিন্ন হাসপাতাল এবং স্ক্যানের ধরনের উপর নির্ভর করে। তবে সাধারণত CT Scan করতে 5,000 থেকে 15,000 টাকার মতো খরচ হয়।

বাংলাদেশে CT Scan করার খরচের তুলনামূলক তালিকা

হাসপাতাল স্ক্যানের ধরন খরচ (BDT)
ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অব নিউরোসায়েন্সেস & হাসপাতাল ব্রেন স্ক্যান 4,000
পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার লিমিটেড ব্রেন স্ক্যান 7,000
হেলথকেয়ার ডায়াগনস্টিক সেন্টার লিমিটেড ব্রেন স্ক্যান 7,000
ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশন অব বাংলাদেশ ব্রেন স্ক্যান 5,800

CT Scan করার খরচ কমানোর উপায়

  • সরকারি হাসপাতালে CT Scan করলে খরচ কম হয়।
  • বেসরকারি হাসপাতালে CT Scan করার আগে বিভিন্ন হাসপাতালের খরচ তুলনা করে দেখুন।
  • কিছু হাসপাতালে CT Scan প্যাকেজ অফার করে, যা আপনাকে অর্থ সাশ্রয় করতে সাহায্য করতে পারে।
  • আপনার যদি বীমা থাকে, তাহলে CT Scan করার খরচ বীমা কোম্পানি বহন করতে পারে।

আপনি চাইলে এভাবে করাতে পারেন।

 

CT Scan করার আগে যা করবেন

  • CT Scan করার আগে আপনার ডাক্তারের সাথে কথা বলুন এবং কী কী করতে হবে বা কী কী না করতে হবে, তা জেনে নিন।
  • CT Scan করার আগের রাতে আপনি লাইট খাবার খাবেন এবং পর্যাপ্ত পানি পান করবেন।
  • CT Scan করার দিন আপনি কোনো ধরনের গয়না বা ধাতব বস্তু পরবেন না।
  • আপনার যদি ডায়াবেটিস বা অন্য কোনো জটিল রোগ থাকে, তাহলে আপনার ডাক্তারকে জানান।

আপনি চাইলে এভাবে করাতে পারেন।

 

CT Scan করার পরে যা করবেন

  • CT Scan করার পরে আপনি স্বাভাবিকভাবেই আপনার দৈনন্দিন কাজকর্ম চালিয়ে যেতে পারবেন।
  • CT Scan করার পরে আপনার শরীরে কোনো অস্বস্তি লাগলে, আপনার ডাক্তারকে জান

বাংলাদেশে CT Scan করার খরচের উপর প্রভাব ফেলতে পারে এমন কিছু কারণ

  • হাসপাতালের অবস্থান: ঢাকার মতো বড় শহরের হাসপাতালে CT Scan করার খরচ সাধারণত অন্যান্য শহরের চেয়ে বেশি হয়।
  • স্ক্যানের ধরন: ব্রেন স্ক্যান, পেটের স্ক্যান, বা বুকের স্ক্যানের মতো কিছু স্ক্যানের খরচ অন্য স্ক্যানের চেয়ে বেশি হয়।
  • স্ক্যানের সময়কাল: দীর্ঘ সময়ের স্ক্যানের খরচ সাধারণত স্বল্প সময়ের স্ক্যানের চেয়ে বেশি হয়।
  • CT Scan করার জন্য ব্যবহৃত সরঞ্জাম: আধুনিক CT Scan মেশিনের খরচ সাধারণত পুরানো মেশিনের চেয়ে বেশি হয়।

 

CT Scan করার খরচ সম্পর্কে কিছু টিপস

  • আপনার ডাক্তারের সাথে কথা বলুন: CT Scan করার আগে আপনার ডাক্তারের সাথে কথা বলুন এবং আপনার জন্য কোন ধরনের স্ক্যান প্রয়োজন তা জেনে নিন। আপনার ডাক্তার আপনাকে স্ক্যানের খরচ সম্পর্কেও তথ্য দিতে পারেন।
  • বিভিন্ন হাসপাতালের খরচ তুলনা করে দেখুন: CT Scan করার আগে বিভিন্ন হাসপাতালের খরচ তুলনা করে দেখুন। এটি আপনাকে একটি ভালো দামে স্ক্যান করার সুযোগ করে দিতে পারে।
  • CT Scan প্যাকেজ অফারগুলি বিবেচনা করুন: কিছু হাসপাতাল CT Scan প্যাকেজ অফার করে, যা আপনাকে অর্থ সাশ্রয় করতে সাহায্য করতে পারে।
  • আপনার বীমা কোম্পানির সাথে কথা বলুন: আপনার যদি বীমা থাকে, তাহলে CT Scan করার খরচ বীমা কোম্পানি বহন করতে পারে।

বাংলাদেশে ct scan করতে কত টাকা লাগে

 

CT Scan সম্পর্কে কিছু সাধারণ প্রশ্ন

CT Scan কি ব্যথাহীন?

সাধারণত  CT Scan ব্যথাহীন হয়।

তবে, কিছু ক্ষেত্রে রোগীর শরীরে কিছু অস্বস্তি হতে পারে।

CT Scan করার পর আমি কতক্ষণ বিশ্রাম নিতে হবে?

CT Scan করার পরে আপনি স্বাভাবিকভাবেই আপনার দৈনন্দিন কাজকর্ম চালিয়ে যেতে পারবেন।

তবে, আপনার যদি কোনো অস্বস্তি লাগে, তাহলে আপনার ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী বিশ্রাম নিন।

CT Scan করার পর আমি কি কোনো ওষুধ নিতে পারি?

CT Scan করার পরে সাধারণত কোনো ওষুধ নেওয়ার প্রয়োজন হয় না। তবে, আপনার যদি কোনো অস্বস্তি লাগে, তাহলে আপনার ডাক্তার আপনাকে কিছু ওষুধ দিতে পারেন।

আশা করি এই নিবন্ধটি আপনাকে বাংলাদেশে CT Scan করার খরচ সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য প্রদান করেছে।

বাংলাদেশে CT Scan করার খরচের উপর প্রভাব ফেলতে পারে এমন কিছু অন্যান্য কারণ

  • CT Scan করানোর সময়: ছুটির দিনে বা রাতে CT Scan করানোর খরচ সাধারণত কর্মদিবসে করানোর চেয়ে বেশি হয়।
  • CT Scan করানোর জন্য ব্যবহৃত রঞ্জক পদার্থ: কিছু ক্ষেত্রে CT Scan করার জন্য রঞ্জক পদার্থ ব্যবহার করা হয়। রঞ্জক পদার্থের খরচ স্ক্যানের খরচের উপর প্রভাব ফেলতে পারে।
  • CT Scan করানোর জন্য ব্যবহৃত প্রযুক্তি: আধুনিক CT Scan প্রযুক্তি ব্যবহারের খরচ সাধারণত পুরানো প্রযুক্তির চেয়ে বেশি হয়।

 

CT Scan করার খরচ কমানোর জন্য কিছু অতিরিক্ত টিপস

  • আপনার ডাক্তারকে জিজ্ঞাসা করুন যে CT Scan ছাড়াই আপনার অবস্থা নির্ণয় করা কি সম্ভব? কিছু ক্ষেত্রে, CT Scan ছাড়াই একটি রোগ নির্ণয় করা যেতে পারে।
  • CT Scan প্যাকেজ অফারগুলি বিবেচনা করুন: কিছু হাসপাতাল CT Scan প্যাকেজ অফার করে, যা আপনাকে অর্থ সাশ্রয় করতে সাহায্য করতে পারে।
  • আপনার বীমা কোম্পানির সাথে কথা বলুন: আপনার যদি বীমা থাকে, তাহলে CT Scan করার খরচ বীমা কোম্পানি বহন করতে পারে।

 

CT Scan সম্পর্কে কিছু অতিরিক্ত তথ্য

  • CT Scan একটি নিরাপদ পরীক্ষা। তবে, CT Scan করার আগে আপনার ডাক্তারের সাথে কথা বলুন, যদি আপনার কোনো স্বাস্থ্য সমস্যা থাকে।
  • CT Scan করার পরে, আপনার ডাক্তার আপনাকে স্ক্যানের ফলাফল সম্পর্কে জানাবেন।

আশা করি এই অতিরিক্ত তথ্যগুলি আপনাকে বাংলাদেশে CT Scan করার খরচ সম্পর্কে আরও ভালভাবে বুঝতে সাহায্য করবে।

Leave a Comment